বৃষ্টির সময় এবং বৃষ্টির পর দুয়া|

বৃষ্টির সময় এবং বৃষ্টির পর
দুয়া:*
বৃষ্টি আল্লাহর রহমতের এক
অন্যতম নিদর্শন, যে সময়
তিনি বান্দার দোয়া কবুল
করে থাকেন। তাই যখন বৃষ্টি
পড়ে তখন নিজের এবং
অন্যের জন্য আল্লাহর কাছে
অন্তর থেকে দোয়া করুন,
দেখবেন ঠিক কবুল করবেন ইন
শা’ ল্লাহ। কত কিছুর
জন্যইতো আপনার আক্ষেপ
এটা হলোনা, ওটা হলোনা,
এটা চাই, ওটা চাই… . তবে
আর সময় নষ্ট করা কেন,
বৃষ্টিতো শুরু হয়ে গেলো,
চাইতে থাকুন মহান আল্লাহ্র
কাছে যা কল্যাণময়।
আল্লাহ্ সুবহানু তায়ালা
কতো সুন্দর করেই না
বলেছেনঃ
“আমি আকাশ থেকে
কল্যাণময় বৃষ্টি বর্ষণ করি
এবং যা দ্বারা বাগান ও
শস্য উদগত করি, যেগুলোর ফসল
আহরণ করা হয়। (ক্বাফঃ৯)
“তিনিই বৃষ্টির পূর্বে
সুসংবাদবাহী বায়ু পাঠিয়ে
দেন। এমনকি যখন বায়ুরাশি
পানিপূর্ন মেঘমালা বয়ে
আনে, তখন আমি এ
মেঘমালাকে একটি মৃত
শহরের দিকে বয়ে দেই।
অতঃপর এ মেঘ থেকে বৃষ্টি
ধারা বর্ষণ করি। অতঃপর
পানি দ্বারা সব রকমের ফল
উৎপন্ন করি। এমনি ভাবে
মৃতদেরকে বের করব যাতে
তোমরা চিন্তা কর।” (আল
আরাফঃ৫৭)
“মানুষ নিরাশ হয়ে যাওয়ার
পরে তিনি বৃষ্টি বর্ষণ করেন
এবং স্বীয় রহমত ছড়িয়ে
দেন। তিনিই
কার্যনির্বাহী,
প্রশংসিত।” (আশ শুরাঃ২৮)
“তোমরা যে পানি পান কর,
সে সম্পর্কে ভেবে দেখেছ
কি? তোমরা তা মেঘ থেকে
নামিয়ে আন, না আমি বর্ষন
করি? আমি ইচ্ছা করলে
তাকে লোনা করে দিতে
পারি, অতঃপর তোমরা কেন
কৃতজ্ঞতা প্রকাশ কর
না?” (ওয়াক্বিয়াঃ ৬৮-৭০)
তবে যারা বলে বৃষ্টি একদম
ভাল লাগেনা কারণ, রাস্তা
কাদায় ভরে যায়,
স্যাঁতস্যাঁতে আবহাওয়া,
তাদের জন্য খুব আফসোস হয়।
কারণ তারা হয়ত জানেননা
এই সময়টা কত রহমতের।
রাসুলুল্লাহ সাল্লাল্লাহু
আলাইহি ওয়া সাল্লাম
বলেছেনঃ
*“দুইটি বিষয় আছে এমন
যেইগুলো ফিরিয়ে দেওয়া
হয়না, আযানের সময় দুয়া ও
বৃষ্টির সময়ে দুয়া”।*
(আবু দাউদ)
শায়খ আলবানী হাদীসটিকে
সহীহ বলেছেন, সহীহুল
জামিঃ ৩০৭৮।
*বৃষ্টি দেখলে দো‘আ*
ًﺎﻌِﻓﺎَﻧ ًﺎﺒِّﻴَﺻ َّﻢُﻬَّﻠﻟﺍ
*হে আল্লাহ! মুষলধারায়
উপকারী বৃষ্টি বর্ষণ করুন।*
আল্লা-হুম্মা সায়্যিবান
নাফি‘আন
বুখারী, (ফাতহুল বারীসহ)
২/৫১৮, নং ১০৩২।
*বৃষ্টি বর্ষণের পর যিকর*
ِﻪَّﻠﻟﺍ ِﻞْﻀَﻔِﺑ ﺎَﻧْﺮِﻄُﻣ
ِﻪِﺘَﻤْﺣَﺭَﻭ
*আল্লাহ্র অনুগ্রহ ও দয়ায়
আমাদের উপর বৃষ্টি বর্ষিত
হয়েছে।*
মুতিরনা বিফাদলিল্লা-হি
ওয়া রহমাতি-হি
বুখারী ১/২০৫, নং ৮৪৬;
মুসলিম ১/৮৩, নং ৭১।

Daily Hadits

Author: Daily Hadits

আল্লাহ্ এক

Leave a Reply